অনলাইনে স্বাস্থ্য সেবা প্রদান করার নির্ভরযোগ্য একটি প্রতিষ্ঠান।

ক্যান্সার আদৌ কোন রোগ না-ডঃ বিকাশ গুপ্ত !

ক্যান্সার নিরাময়ে অভিনব পদ্ধতি ।

0

ডঃ বিকাশ গুপ্ত বলেছেন, কেউই ক্যান্সারে মারা যাবে না যদি তিনি নিম্ন লিখিত কদিপয় সহজ পদক্ষেপ নেনে :

১.চিনি খাওয়া বন্ধ করতে হবে । তাহলে ক্যান্সার জীবানু এমনিতেই মারা যাবে ।

২.গরম জলে লেবুর সরবত ১/৩ মাস নিয়মিত পান করলে ক্যান্সার নিরাময়/প্রতিরোধ করা সম্ভব । এটা কেমোখেরাপির চেয়ে ১০০০ গুন ভাল । ডাঃ গুপ্ত এছাড়াও বলেছেন অজ্ঞতা কোন অযুহাত হতে পারেনা । ক্যান্সার প্রতিরোধের সহজ পদক্ষেপগুলো সবাইকে জানাতে হবে ।

ডঃ বিকাশ গুপ্ত নিজে এই কথা গত ৫ বছর যাবৎ প্রচার করে চলেছেন ।

The University of Meryland school of Medicine এর চিকিৎসা বিজ্ঞানীগণ দীর্ঘ গবেষণায় একথা প্রমাণ করেছেন ।

সুন্দর স্বাস্থ্যের অধিকারী হতে ডাঃ গুপ্ত আরো কিছু পরামর্শ দিয়েছেন । নিম্নে তা পাঠকের জন্য তুলে ধরছি :

১.লেবুর রসের মধ্যে প্রাপ্ত সাইট্রিক এসিড উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করে রক্ত নালিকা ব্লক হওয়া রোধ করে এবং রক্ত সঞ্চালণ বাড়িয়ে রক্তে জমাট বাঁধা কমিয়ে দেয় ।

২.হলুদ ও পার্পল বা মেজেন্টা রংয়ের মিষ্টি আলুর মধ্যে ক্যান্সারপ্রতিরোধের গুণাবলী রয়েছে ।

৩.প্রায়শই রাতে দেরিতে খাওয়ার কারণে পাকস্থলির ক্যান্সার হতে পারে ।

৪.সপ্তাহ ৪(চার ) টার বেশি ডিম খাওয়া যাবেনা।

৫.মুরগীর পিঠের অংশ খাওয়ার কারণে পাকস্থলির ক্যান্সার হতে পারে ।

৬.খাওয়ার পরে ফল খাওয়া যাবে না বরং খাওয়ার আগেই ফল খেয়ে নিন ।

৭. মাসিক চলাকালীন সময়ে চা পান থেকে মেয়েদের বিরত থাকতে হবে ।

৮.সয়মিল্ক খাবেন কিন্তু এতে চিনি ও ডিম যোগ করা যাবেনা ।

৯.খালিপেটে টমেটো খাওয়া যাবেনা ।

১০.পিত্ত থলির পাথর হওয়া থেকে মুক্ত থাকতে প্রতিদিন সকালে নাস্তার আগে একগ্রাস জল পান করতে হবে ।

১১.বিছানায় যাওয়ার কমপক্ষে ৩ ঘন্টা আগে আহার করবেন ।

১২.মদ্যপান থেকে সম্পূর্ণ বিরত থাকতে হবে ।

১৩.প্রক্রিয়াজাত খাবার ডায়াবেটিস ও উচ্চ রক্তচাপ বাড়িয়ে দিতে পারে ।

১৪.প্রতিদিন ১০ গ্লাস পানি পান করুণ ।

১৫.রাতে কম দিনে বেশি পানি পান করুণ ।

১৬.দিনে ২ কাফের বেশি কফি পান করবেন না । এতে নিদ্রাহীনতা ও গ্যাষ্ট্রিকের সমস্যা হতে পারে ।

১৭.তৈলাক্ত খাবার কম খাবেন । কারণ এই জাতীয় খাবার হজম হতে ৫/৭ ঘন্টা সময় লাগে । যা আপনার শরীরে ক্লান্তি এনে দেয় ।

১৮.বিকাল ৫ টার পর খাওয়া কমিয়ে দিন ।

১৯.দৈনিক ৮(আট) ঘন্টার কম ঘুম আপনার মস্তিস্কের কর্মক্ষমতা কমিয়ে দিতে পারে ।

ডঃ বিকাশ গুপ্ত -অনকোলজিস্ট ও হেমাটোলজিস্ট,কমপ্রিহেনসিভ ক্যান্সার সেন্টার অফ হেভাডা,যুকাতরাষ্ট্র ।

Leave A Reply

Your email address will not be published.